Untitled Document

‘দ্রুত লিটন হত্যা রহস্য উদঘাটন’

ফেমাস নিউজ ডেস্ক | ১১ জানুয়ারি ২০১৭

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, সংসদ সদস্য মনজুরুল ইসলাম লিটনের হত্যাকারীদের শনাক্ত করে বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড় করানো হবে। খুব দ্রুত লিটনের হত্যারহস্য উদঘাটন করা হবে। হত্যাকারীদের কেউ ছাড় পাবে না।

বুধবার দুপুরে রংপুর জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে দশম জাতীয় সংসদের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির ১৫তম বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এসব কথা বলেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এমপি লিটন হত্যার আগে যতগুলো হত্যাকাণ্ড ঘটেছে এর সঙ্গে যারা সংশ্লিষ্ট ছিল তাদের সবাইকে শনাক্ত করা হয়েছে। সবাইকে গ্রেপ্তার করে বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড় করানো হয়েছে।

সংসদের বাইরে এই প্রথম রংপুরে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত বৈঠক অনুষ্ঠিত হলো। এই বৈঠককে ঘিরে প্রশাসনের পক্ষ থেকে নেওয়া হয়েছিল বিশেষ নিরাপত্তা ব্যবস্থা। দুপর ১টা ৫ মিনিটে এই বৈঠক শুরু হয়ে শেষ হয় ৩টা ১০ মিনিটে।

বৈঠকে কমিটির সদস্য, সংসদ সদস্য, পুলিশের আইজি, র‌্যাবের মহাপরিচালক, বিজিবির মহাপরিচালকসহ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরো বলেন, বর্তমান সরকার জঙ্গি দমনে জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ডাকে দেশের মানুষ ঘুরে দাঁড়িয়েছে। জঙ্গি দমন পুরোপুরি নির্মূল না হলেও তা এখন নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এ পর্যন্ত যতগুলো জঙ্গি ধরা পড়েছে তাদের সবার উত্তরাঞ্চলের সঙ্গে কোনো কোনো যোগসূত্র ছিল। এরা হয়ত উত্তরাঞ্চলের কোথাও লেখাপড়া করেছে, আবার কারো বাড়ি উত্তরাঞ্চলেই। এরা কোনো না কোনোভাবে এই অঞ্চলেরর সঙ্গে সম্পৃক্ত। তাই এই অঞ্চলকে গুরুত্বের সঙ্গে দেখা হচ্ছে।

সংসদের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি টিপু মুন্সি এই বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন।

তিনিও সাংবাদিকদের প্রেস ব্রিফিংকালে বলেন, রংপুর হচ্ছে অবহেলিত বিভাগ। তাই সংসদের বাইরে এই প্রথম রংপুরে এ ধরনের বৈঠক করা হলো।

তিনি বলেন, স্পিকারের অনুমতি নিয়ে এই বৈঠক করা হয়েছে, যা অতীতে কখনো হয়নি। জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে সরকার বিশেষ পদক্ষেপ নিয়েছে। সন্ত্রাস দমনে কাউন্টার টেররিজম বাহিনী গঠন করা হচ্ছে। এই বাহিনীর কাজ হবে শুধু সন্ত্রাস দমন করা।

বৈঠক সম্পর্কে টিপু মুন্সি বলেন বৈঠকে মাদক, সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ, পাসপোর্ট সমস্যাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয়েছে।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- সংসদ সদস্য শামসুল হক টুকু, ওমর ফারুক চৌধুরী, আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন, ফখরুল ইমাম, বেগম কামরুন নাহার চৌধুরী, পুলিশের আইজি একেএম শহিদুল হক, র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদ, বিজিবির মহাপরিচালক মেজর জেনারেল আবুল হোসেন, আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর অতিরিক্ত মহাপরিচালক মো. নুরুল আলম, স্বরাষ্ট্র সচিব কামাল উদ্দিন আহমেদ, সিনিয়র সহকারী সচিব নাজমুন নাহার, রংপুর বিভাগীয় কমিশনার কাজী হাসান আহমেদ, রংপুর রেঞ্জের ডিআইজি খন্দকার গোলাম ফারুক প্রমুখ।


সম্পর্কিত সংবাদ







এ বিভাগের সকল সংবাদ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত

সকল সর্বশেষ    







ফোন: ০২ ৯৩৬১৩৮৫, মোবাইল: ০১৯৫১ ১৩৩৯০৯, ০১৯৭৮ ৫২৬৬৬৬ । ই-মেইল: [email protected]