logo

শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮ | ৩ অগ্রহায়ণ, ১৪২৫

header-ad

প্রধানমন্ত্রীকে দেয়া চিঠিতে যা লিখেছেন ফখরুল

নিজস্ব প্রতিবেদক | আপডেট: ০৭ নভেম্বর ২০১৮

বিএনপি নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মিথ্যা, উদ্ভট ও গায়েবি মামলা প্রত্যাহারের আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে চিঠি দিয়েছেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

ওই চিঠিতে ‘গায়েবি’ মামলার একটি আংশিক তালিকা পাঠানোর কথাও জানিয়েছেন মির্জা ফখরুল। গতকাল মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত সহকারীকে প্রাপক করে তিনি এ চিঠি পাঠান।

চিঠিতে বলা হয়-

শুভেচ্ছা নেবেন। গত কয়েক বছর ধরে বিএনপির জাতীয় নেতৃবৃন্দসহ দেশব্যাপী জেলা, মহানগর, উপজেলা, থানা- এমনকি ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড পর্যায়ের নেতাকার্মীদের বিরুদ্ধে হাজার হাজার মিথ্যা, উদ্ভট, গায়েবি ও রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত মামলা করা হচ্ছে, যা গতকাল পর্যন্ত অব্যাহত আছে।

তিনি বলেন, গত ১ সেপ্টেম্বর সারা দেশে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ব্যাপকহারে বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীদের মিথ্যা ও গায়েবি মামলা দিয়ে গ্রেফতারের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করছে। রির্মান্ডে নিয়ে অকথ্য নির্যাতন করছে।

এ ধরনের ন্যক্কারজনক ও অমানবিক ঘটনা নিঃসন্দেহে গভীর উদ্বেগজনক।

চিঠিতে ফখরুল ইসলাম আলমগীর লেখেন, ন্যূনতম কোনো সত্যতা কিংবা প্রমাণ না থাকলেও নেতাকর্মীদের এ ধরনের বানোয়াট ও হাস্যকর মামলায় প্রতিনিয়ত জড়াচ্ছে। আশ্চর্য হলেও সত্য যে, বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের মৃত কিংবা দেশের বাইরে অবস্থানরত ব্যক্তিদেরও মিথ্যা মামলায় আসামি করা হচ্ছে।

এর আগে গত ১ নভেম্বর সংলাপে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সঙ্গে আলোচনার সময় প্রধানমন্ত্রী বিএনপি নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে করা গায়েবি মামলার তালিকা প্রেরণের জন্য বলেন।

ফখরুল বলেন, এর আলোকে দেশব্যাপী বিএনপি, অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলা উল্লেখপূর্বক আংশিক তালিকা প্রেরণ করা হলো। মামলার তালিকা মোতাবেক গায়েবি মিথ্যা মামলায় নেতাকর্মীদের গ্রেফতার ও হয়রানি বন্ধ করে এসব মামলা প্রত্যাহার করার জন্য অনুরোধ করা হলো। পরবর্তী সময় এ সংক্রান্ত তালিকা পাঠানো হবে।

ফেমাসনিউজ২৪.কম/আরআই/আরবি