logo

বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১ | ১৮ অগ্রহায়ণ, ১৪২৮

header-ad

দাখিল পরীক্ষা ১৪ নভেম্বর শুরু, একই দিন শুরু হতে পারে এসএসসি

স্টাফ রিপোর্টার | আপডেট: ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১

করোনার কারণে নির্ধারিত সময়ে পরীক্ষা নিতে না পারলেও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এখন খুলতে পারায় চলতি বছরের দাখিল পরীক্ষার সময়সূচি ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড।

বৃহস্পতিবার ২০২১ সালের দাখিল পরীক্ষার সময়সূচি ঘোষণা করা হয়।

সূচি অনুযায়ী, আগামী ১৪ নভেম্বর চলতি বছরের দাখিল পরীক্ষা শুরু হবে। মোট তিন দিনে এই পরীক্ষা হবে। শেষ হবে ২১ নভেম্বর। প্রথম দিন (১৪ নভেম্বর) কোরআন মাজিদ ও তাজভিদ এবং পদার্থবিজ্ঞান (তত্ত্বীয়) বিষয়ের পরীক্ষা হবে। ১৮ নভেম্বর হবে হাদিস শরিফের পরীক্ষা। শেষদিন ২১ নভেম্বর ইসলামের ইতিহাস, রসায়ন (তত্ত্বীয়), তাজভিদ নসর ও নজম (মুজাব্বিদ গ্রুপ) এবং তাজভিদ (হিফজুল কোরআন গ্রুপ) বিষয়ের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

সময়সূচিতে পরীক্ষার্থীদের জন্য পাঁচটি নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে, সেগুলো হলো- ১. করোনা অতিমারির কারণে যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষার কেন্দ্রে যেতে হবে। ২. পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট আগে অবশ্যই পরীক্ষার্থীদের আসন গ্রহণ করতে হবে। ৩. পরীক্ষার সময় হবে ১ ঘণ্টা ৩০ মিনিট। এমসিকিউ ও লিখিত পরীক্ষার মধ্যে কোনো বিরতি থাকবে না। ৪. পরীক্ষার দিন সকাল ৯টা ৩০ মিনিটে শিক্ষার্থীদের উত্তরপত্র এবং ওএমআর শিট বিতরণ করা হবে। ৫. পরীক্ষা শুরুর তিন দিন আগে প্রতিষ্ঠানপ্রধানদের কাছ থেকে প্রবেশপত্র সংগ্রহ করতে হবে।

এদিকে পৃথক সময়সূচিতে পরীক্ষা হলেও সাধারণত প্রতিবছর এসএসসি, দাখিল ও এসএসসি ভোকেশনাল- এই তিনটি পরীক্ষা একইদিনে শুরু হয়। কিন্তু এ বছর দাখিলের সময়সূচি ঘোষণা হয়ে গেল, কিন্তু এসএসসির সময়সূচি ঘোষণা হয়নি এখনো।

এ বিষয়ে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একটি শিক্ষা বোর্ডের দায়িত্বশীল একজন কর্মকর্তা বৃহস্পতিবার একটি গণমাধ্যমকে বলেন, এবারও এসএসসি পরীক্ষা একই দিনে শুরু হওয়ার কথা রয়েছে। সেভাবেই শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে। সময়সূচির বিষয়েও পৃথক ফাইল গেছে। হয়তো দাখিলের পরীক্ষার সময়সূচির ফাইলটি অনুমোদন হয়ে গেছে আগে। তাই আগে দাখিলের সময়সূচি ঘোষণা করা হয়েছে।

তবে ১৫ নভেম্বরের মধ্যে এসএসসি পরীক্ষা শুরুর কথা ওই গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক অধ্যাপক এসএম আমিরুল ইসলাম।

দাখিলে যেদিন যে পরীক্ষা
দাখিল পরীক্ষার ঘোষিত সময়সূচি অনুযায়ী, কোরআন মাজিদ ও তাজভিদ এবং পদার্থবিজ্ঞান (তত্ত্বীয়) বিষয়ের পরীক্ষা হবে প্রথম দিন (১৪ নভেম্বর) এবং ১৮ নভেম্বর হবে হাদিস শরিফের পরীক্ষা। আর ২১ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হবে ইসলামের ইতিহাস, রসায়ন (তত্ত্বীয়), তাজভিদ নসর ও নজম (মুজাব্বিদ গ্রুপ) এবং তাজভিদ (হিফজুল কোরআন গ্রুপ)।

মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মো. কামাল উদ্দিন বলেন, এখানে চারটি গ্রুপের বিষয় আছে। কিন্তু একেকটি গ্রুপের একজন পরীক্ষার্থীকে তিনটি বিষয়ে পরীক্ষা দিতে হবে।

এবার আগেই সিদ্ধান্ত হয়েছে, এ বছরের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা করোনাভাইরাসের সংক্রমণ পরিস্থিতির কারণে শুধু গ্রুপভিত্তিক (যে শিক্ষার্থী যে শাখার) তিনটি নৈর্বাচনিক বিষয়ে হবে। আবশ্যিক ও চতুর্থ বিষয়ে কোনো পরীক্ষা হবে না। জেএসসি ও সমমান এবং এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার নম্বরের ভিত্তিতে ‘বিষয় ম্যাপিং’ করে আবশ্যিক ও চতুর্থ বিষয়ের নম্বর দেওয়া হবে।

দাখিলের সময়সূচিতে দেওয়া নির্দেশনায় বলা হয়েছে, করোনার কারণে স্বাস্থ্যবিধি মেনে হবে এই পরীক্ষা। পরীক্ষার সময় দেড় ঘণ্টা। তবে পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট আগে অবশ্যই পরীক্ষার কক্ষে আসন গ্রহণ করতে হবে। এমসিকিউ এবং সিকিউ (সৃজনশীল প্রশ্ন) অংশের পরীক্ষার মধ্যে কোনো বিরতি থাকবে না।

পরীক্ষার্থীদের নিজ নিজ প্রতিষ্ঠান থেকে পরীক্ষা শুরুর কমপক্ষে তিন দিন আগে প্রবেশপত্র সংগ্রহ করতে হবে।