logo

মঙ্গলবার, ২২ মে ২০১৮ | ৮ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৫

header-ad

রবীন্দ্রপ্রেমীদের ভিড়ে মুখোরিত হয়ে উঠেছে কুঠিবাড়ি

ইসমাইল হোসেন বাবু, কুষ্টিয়া | আপডেট: ০৯ মে ২০১৮

প্রতি বছরের ন্যায় এবারও তিন দিনব্যাপী রবীন্দ্র জন্মজয়ন্তী উৎসবে রবীন্দ্রপ্রেমীদের ভিড়ে মুখোরিত হয়ে উঠেছে শিলাইদহ কুঠিবাড়ি। বিশ্ব কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৫৭তম জন্মজয়ন্তী উৎসবের আজ দ্বিতীয় দিন চলছে। দিবসটি উদযাপনে আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও গ্রামীণ মেলার চলছে।

এ উপলক্ষে কবির স্মৃতি ধন্য কুষ্টিয়ার শিলাইদহ কুঠিবাড়িতে এখন সাজ সাজ রব। উৎসব উপলক্ষে কুঠিবাড়ি ঘিরে নেয়া হয়েছে বাড়তি নিরপত্তা ব্যবস্থা।

পদ্মাতীরের ছায়াশীতল নিরিবিলি পরিবেশের কারণেই বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর বারবার ফিরে আসতেন কুষ্টিয়া শহর থেকে মাত্র ১৩ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত শিলাইদহ কুঠিবাড়িতে। পদ্মাতীরের এই কুঠিবাড়িতে কবিগুরু সপরিবারে বড় একটি সময় কাটিয়েছেন।

এখানে বসেই তিনি রচনা করেছেন কালজয়ী অনেক কাব্যগ্রন্থ, ছোট গল্প, নাটক ও উপন্যাস। সারাবছর ধরেই এ কুঠিবাড়িতে দর্শনার্থীদের ভিড় লেগেই থাকে। তবে কবিগুরুর জন্মজয়ন্তী অনুষ্ঠানে রবীন্দ্রভক্তদের মনে যেন আলাদা মাত্রা যোগ করেছে।

এখন কবিগুরুর কুঠিবাড়ি প্রাঙ্গণে কুষ্টিয়া জেলার বিভিন্ন উপজেলার শিল্পকলা একাডেমীর শিল্পীদের অংশগ্রহণে সংগীতসহ বিভিন্ন সাংস্কৃতিক সংগঠনের পক্ষ থেকে কবিতা, গান, নৃত্যানুষ্ঠান পরিবেশিত হচ্ছে।

এদিকে ভেড়ামারা উপজেলার বিত্তিপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. আরিফুল ইসলাম ও শিলাইদহ কুঠিবাড়ি কাস্টোডিয়ান মখলেচুর রহমান ভূঁইয়া বলেন, অবশ্য এবার কুঠিবাড়ির জন্মজয়ন্তি উৎসব জাতীয়ভাবে পালনের সিদ্ধান্ত নেয়ায় উৎসবের গুরুত্বও আরো বেড়েছে তার প্রমাণ আজকের দর্শনার্থীদের ভিড়।

কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসক মো. জহির রায়হান বলেন, শিলাইদহ কুঠিবাড়িতে এখন সাজ সাজ রব। উৎসব উপলক্ষে দর্শনার্থীদের কথা মাথায় রেখে কুঠিবাড়ি ঘিরে নেয়া হয়েছে বাড়তি নিরপত্তা ব্যবস্থা। তিনদিনব্যাপী এই উৎসবের মঙ্গলবার বিকেলে আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত। কবিগুরুর জন্মজয়ন্তী উৎসব শেষ হবে বৃহস্পতিবার।
ফেমাসনিউজ২৪/প্রতিনিধি/এফএম/এমএম