logo

বুধবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ১৪ ফাল্গুন, ১৪২৬

header-ad

রাফিয়া আহমেদের গুচ্ছ কবিতা

| আপডেট: ৩১ মে ২০১৮

মুখোশ

 

দেখো , একদিকে সদা সত্য তুমি আছো, আর
অন্যদিকে সত্যকে মিথ্যে মুখোশ ঢাকি আমি।
কি আশ্চর্য জীবন তাই না!
একই মঞ্চে আছি মোরা সত্য আর মিথ্যা।
কি আনন্দে খেলায় মেতে উঠেছে ঐ সৃষ্টিকর্তা।
তুমি সত্য কত সুন্দর, কত স্পষ্ট, কত জীবন্ত
তোমাকে যে কেউ সহজেই জানতে পারে, বুঝতেও পারে।
আর আমি মিথ্যে মুখোশের আড়ালে লুকিয়ে থাকা কখনো পোড়ামুখ
মুখোশ সরিয়ে যখন মানুষ হঠাৎ আমায় দেখে তখন শুধু ঘেন্না করে।
অথচ সত্য আর মিথ্যে মিলেই এই একই মঞ্চে আছি।
আর এটাই বাস্তব, এটাই পরম সত্য।

 

অভ্যাস

 

তুমি আমার রীতিমত অভ্যাস হয়ে গেছো
তাই আজ এত দূরে থাকার পরেও,
অভিমানি মন নিয়ে আমি তোমায় দেখি।
তুমি আমার শুরু এবং শেষ যাত্রার পথ হয়ে গেছো
তাই শত ব্যস্ততার মাঝেও তোমায় আমি
মনে মনে বহন করে ফিরি।

 

কথোপকথন

 

আচ্ছা তোমাকে এক মুঠোই ভালোবাসবো
ধ্যাত কি যে বলো, এক মুঠো কেনো?
বারে তুমি তো বললে এক মুঠো ভালোবাসতে!
আরে ওটাতো কাব্যিক করে বলেছি,
ভালোবাসা কি আর এক মুঠো বাসা যায়?
হুম তা ঠিক, তবে বললে যে, তাই বললাম।
ঠিক আছে তোমার কথা রইলো আর আমারো
তুমি আমাকে ওই এক মুঠোই ভালোবাসবে
কিন্তু ওই এক মুঠো কি একটু বড় হতে পারে না?
হুম, আচ্ছা যাও তোমায় আমি এক গল্প ভালোবাসবো।
ধ্যাত তুমি দেখি খুব কিপটুস, ভালোবাসায় এত কার্পণ্য!
বারে তুমি না বললে একটু বাড়াতে, বাড়ালাম তো, তবে—
তুমি এক উপন্যাস পরিমাণ ভালোবাসবে।
হা হা ঠিক আছে তবে তাই হবে, তবে এক শর্তে!
ঠিক আছে, বলো দেখি কি শর্ত আছে তোমার ঝুড়িতে।
আমাকে তোমার এক আকাশ ভালোবাসতে হবে, বলো রাজি!
তুমি দেখি পুরো আকাশ পরিমাণ ভালোবাসাই নিয়ে নিলে।
তবে এই ভালোবাসায় জয় কার হলো?
কার আবার, ভালোবাসার জয় তোমার হলো!
উহু, এই জয় আমার একার নয়
তোমায় আমায় মিলে এক জয়, ভালোবাসার জয়!
হে আমাদের ভালোবাসার জয়।

 

মুখোমুখি

 

মুখোমুখি আজ তুই আর আমি
বরাবরই হয়ে আছি তোর আমি।

মিছে মিছি দূরত্ব কেন করিস সৃষ্টি
হবেই যখন দেখা তোর আর আমার
এই না পথের বুকে দুজনেই যে যাত্রি।

 

 

জ্বলছি

 

পুড়ে যাওয়াটাই যেন আজ আমার ধর্ম,
আর পুড়িয়ে ফেলাটা হলো তোমার কর্ম।

 

ফেমাসনিউজ২৪/আরইউ