logo

শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮ | ৩ অগ্রহায়ণ, ১৪২৫

header-ad
মনোনয়নপ্রত্যাশীদের দৌড়ঝাঁপ

‘আস্থার প্রতীক বাহাউদ্দিন নাছিম এমপি’

মহিবুল আহসান লিমন, মাদারীপুর | আপডেট: ০৬ নভেম্বর ২০১৮

জাতীয় সংসদ নির্বাচনের হাওয়া বইছে মাদারীপুর-৩ আসনে। এরই মধ্যে সম্ভাব্য প্রার্থীরা নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করেছেন।

আসনটিতে কে পাচ্ছেন নৌকা প্রতীক- এমন প্রশ্ন থাকলেও স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও ভোটাররা বলছেন, জনপ্রিয়তার র্শীষে রয়েছেন কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম এমপি। তিনিই দলীয় মনোনয়ন পাবেন। আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতা আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিমও ব্যাপক প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। তিনি মনোনয়ন পাওয়ার ব্যাপারেও শতভাগ আশাবাদী।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, বর্তমান সংসদ সদস্য আ ফ ম বাহাউদ্দীন নাছিম প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আস্থাভাজন। তিনি মাদারীপুরের কালকিনিতে ব্যাপক উন্নয়ন করে জনপ্রয়িতাও অর্জন করেন। কালকিনির প্রতিটি এলাকায় উন্নয়নের ছোঁয়া ও আইনশৃঙ্খলা বজায় রাখতে সক্ষম হন তিনি। মানুষের বিপদ-আপদে ও রোদ-বৃষ্টি-কাদা মাখা পথে ছুটে যান সবার কাছে।

এরই মধ্যে ব্যাপক গণসংযোগ করেছেন মনোনয়নপ্রত্যাশীরা। আ ফ ম বাহাউদ্দদিন নাছিমও এ আসনের প্রতিটি পাড়া মহল্লায় জনসংযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন।

পদ্মা সেতুর মিথ্যা অভিযোগ থেকে মুক্তি পাওয়ার পর সাবেক যোগাযোগমন্ত্রী সৈয়দ আবুল হোসেনও তার জনপ্রিয়তা ফেরাতে চেষ্টা করে যাচ্ছেন। জেলা ও উপজেলা আওয়ামী লীগের বেশির ভাগ নেতারা মনে করেন- একাদশ নির্বাচনে বাহাউদ্দনি নাছিমই মনোনয়ন পাবেন। এটা শতভাগ নিশ্চিত।

জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি মরহুম আ. লতিফ উকিলের ছেলে বর্তমান জেলা জজকোর্টের পিপি অ্যাডভোকেট এমরান লতিফও একাদশ সংসদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন চাইবেন বলে জানা গেছে।
এদিকে কেন্দ্রীয় বিএনপির গণশিক্ষা বিষয়ক সহ-সম্পাদক আনিসুর রহমান খোকন তালুকদার এ আসনে তৃণমূল পর্যায়ে জনসর্মথন পাওয়ার জন্য মরিয়া হয়ে উঠেছেন। তিনি কেন্দ্রীয় বিভিন্ন র্কমসূচিতে এলাকায় এসে কার্যক্রম শুরু করেছেন। তার সঙ্গে জেলা বিএনপির নেতাকর্মীদের রয়েছে গভীর সম্পর্ক।

আসনটিতে রাজেন্দ্র কলেজের সাবেক ভিপি ও কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ-সাংগঠনকি সম্পাদক খন্দকার মাশুকুর রহমানও শক্ত প্রার্থী হিসেবে প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সহ-সভাপতি আসাদুজ্জামান পলাশের নামও শোনা যাচ্ছে। এ ছাড়া জাতীয় পার্টির যুগ্ম সাংগঠনকি সম্পাদক এম এ খালেক ও ইসলামী শাসনতন্ত্র আন্দোলনের অধ্যাপক সৈয়দ বেলায়েত হোসেনের নামও রয়েছে।

উল্লেখ্য, একাদশ জাতীয় নির্বাচন পরিচালনাকারী এবং মূল কমিটির সদস্য হিসেবেও আছেন বাহাউদ্দিন নাছিম।

বিশিষ্ট কৃষিবিদ আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম কালকিনিতে একজন জনপ্রিয় ও আদর্শবান নেতা হিসেবে সমাদৃত। তিনি বাংলাদেশ কৃষি ইনস্টিটিউট (বর্তমানে শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়) ছাত্রলীগের সভাপতি ছিলেন।

১৯৮১ সালে মাদারীপুর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি নির্বাচিত হন। দীর্ঘদিন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ সহকারী ছিলেন। বর্তমানে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করছেন। আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম প্রখ্যাত রাজনীতিবিদ ও কালকিনি (মাদারীপুর-৩) আসন থেকে নির্বাচিত জাতীয় সংসদ সদস্য। তিনি ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি তারিখে অনুষ্ঠিত দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হন।

জানা গেছে, বাহাউদ্দিন নাছিমের নির্বাচনী এলাকায় আওয়ামী লীগ আগের তুলনায় অনেক বেশি শক্তিশালী। বিচক্ষণ, কর্মী ও জনবান্ধব এবং রাজনৈতিক নেতা হিসেবে দলমত নির্বিশেষে সব শ্রেণি ও পেশার মানুষের কাছে সমান সমাদৃত এমপি বাহাউদ্দিন নাছিম।

এমপি নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে তার নির্বাচনী এলাকায় ব্যপক উন্নয়ন করেছেন। রাস্তা-ঘাট স্কুল-কলেজের উন্নয়ন করেছেন। বিশেষ করে বিদ্যুৎ খাতে। ‘অন্ধকার কালকিনির প্রতি গ্রামের ঘরে ঘরে, ২০১৮ সালের মধ্যে বিদ্যুতায়ন হবে প্রতি ঘরে’ (কালকিনি-ডাসার-মাদারীপুর সদর আংশিক) কৃষিবিদ জননেতা আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম এমপি শুধু বিদ্যুৎ খাতে বিরাট পরিবর্তন করেছেন।

কিছু উন্নয়ন চিত্র : ১. নতুন লাইন নির্মাণ ২১০ কিলোমিটার। ২. নতুন লাইন সংযোগ-২০৫৩০টি। এজন্য সরকারের ব্যয় ৩১৫০০০০০০ টাকা। বর্তমান অর্থবছরে আরও ১০০ কিলোমিটার লাইন নির্মাণের কাজ চলছে। কালকিনি উপজেলার বালীগ্রাম ইউনিয়নের সনমন্দী ও কাজীবাকাই ইউনিয়নের মাইজপাড়ায় (১০+১০)=২০এম ভি এ দুটি উপকেন্দ্র নির্মাণের কাজ চলছে। আগামী এক বছরের মধ্যে কালকিনি উপজেলায় শতভাগ বিদ্যুতায়নের লক্ষ্যে কাজ চলছে। যাতে আরও প্রায় ২৮০ কিলোমিটার লাইন নির্মাণের জন্য টেন্ডার প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

সাধারণ মানুষ ও তৃণমূলের দাবি আসনটি আবারও নৌকার বিজয় নিশ্চিত করতে হলে ত্যাগী-নিবেদিত প্রাণ, আস্থা-গতিশীল, আদর্শিক নেতৃত্ব ও পরিচ্ছন্ন ব্যক্তি ইমেজের প্রার্থী প্রয়োজন। আর এসব বিবেচনায় এখানে আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম এমপির কোনো বিকল্প নেই।

সদরের পাঁচটি ইউনিয়ন ছাড়াও কালকিনি পৌরসভাসহ উপজেলার ১৪টি ইউনিয়ন নিয়ে মাদারীপুর-৩ আসন। আসনটি আওয়ামী লীগের দুর্গ হিসেবেই পরচিতি। এ আসনে ভোটার সংখ্যা ২ লাখ ৮৩ হাজার ২২৩ জন।

ফেমাসনিউজ২৪.কম/আরআই/আরবি