logo

শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮ | ৩ অগ্রহায়ণ, ১৪২৫

header-ad

পুলিশকে কেটে রান্না করে খেল বাপ-বেটা!

অন্যরকম খবর ডেস্ক | আপডেট: ৩১ অক্টোবর ২০১৮

ভয়ঙ্কর ঘটনাই বটে! বাবা ও ছেলেকে পুলিশ গ্রেফতার করল। সাবকে এক পুলিশকর্মীর মাথা কেটে তার মাংস খাওয়ার অপরাধে তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়। ইউক্রেনের শহর সালটিভকার স্থানীয়রা শিউরে উঠেছিলেন মাথাবিহীন এক ধড় দেখতে পায়। একটি অ্যাপার্টমেন্ট ব্লকের সামনের দরজার কাছে সেটি রাখা ছিল। দেখা যায়, ওই ধড় থেকে মাংস কেটে নেয়া হয়েছে। একেবারে স্লাইস করার মতো করে মাংস কাটা হয়েছে।

পুলিশ ওই অ্যাপার্টমেন্টে জোর তল্লাশি শুরু করেছে। দেখা যায়, বাবা ও ছেলে যে ফ্ল্যাটে থাকে সেখানকার বারান্দায় পাওয়া যায় ওই ধড়ের মাথাটি। পুলিশ সেটিকে প্রাক্তন এক পুলিশকর্মী বলে চিহ্নিত করেছে, যার বয়স ৪৫-এর কাছে।

একটি বাক্সের ভেতর রাখা ছিল মাথাটি। গত ৪ অক্টোবর থেকে নিখোঁজ ছিলেন ওই পুলিশকর্মী এবং শেষ তাকে দেখা গিয়েছিল ওই বাবা-ছেলের সঙ্গেই।

পুলিশ জানতে পেরেছে, মাথার পেছনে ঘাড়ের দিকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে খুন করা হয়েছে ওই পুলিশকর্মীকে।

ধৃত ২০ বছরের ছেলেটি স্বীকার করেছে যে, ওই পুলিশকর্মীর বুক ও পায়ের মাংস কেটে প্রেসার কুকারে রান্না করে খেয়েছে তারা।

এ ঘটনায় ধৃতদের দশ বছরের জেল হেফাজত হতে পারে বলে জানিয়েছেন আদালত। পুলিশ খুনের মামলা রুজু করে তদন্ত শুরু করেছে।
ফেমাসনিউজ২৪/এফএম/এমএম