logo

বুধবার, ১৯ ডিসেম্বর ২০১৮ | ৪ পৌষ, ১৪২৫

header-ad

হঠাৎ গায়েব আস্ত একটি দ্বীপ!

অন্যরকম ডেস্ক | আপডেট: ০৫ নভেম্বর ২০১৮

আস্ত একটি দ্বীপ চুরি হয়ে গেছে! অবিশ্বাস্য লাগছে না? কিন্তু আসলে বিষয়টি সত্য। তাও যদি ঝড়ঝঞ্ঝা বা সুনামি হতো, কথা ছিল। হয়তো সমুদ্রে তলিয়ে যেত দ্বীপটি। কিন্তু এমন কিছুই হয়নি।

আকাশ ঝকঝকে পরিষ্কার। এমন ক্ষেত্রে দ্বীপ গায়েব হয়ে যাওয়া শুধু অবিশ্বাস্য নয়, অদ্ভুতুড়েও। কিন্তু যাই হোক, এমনই একটা ঘটনা ঘটেছে জাপানে।

জাপানের মূলভাগে হোক্কাইদো নামে একটি দ্বীপ আছে। উপকূলের সারাফুতসু নামে একটি গ্রাম থেকে এর দূরত্ব মাত্র ৫০০ মিটার। দ্বীপটির নাম এসানবে হানাকিতা কোজিমা। কিন্তু কবে যে এটি হারিয়ে গেল, তা কেউ খেয়ালই করেনি। বিষয়টি প্রথম লক্ষ্য করেন লেখক হিরশি শিমিজু। দ্বীপ নিয়ে একটি বই লিখছিলেন তিনি।

তখনই তথ্য জোগাড় করতে গিয়ে দেখেন বেমালুম গায়েব হয়ে গেছে এসানবে হানাকিতা কোজিমা দ্বীপটি। তিনি স্থানীয়দের এ ব্যাপারে জিজ্ঞাসাবাদও করেন। কিন্তু তারাও স্পষ্ট করে কিছু জানাতে পারেননি।

তবে বহুদিন থেকেই দ্বীপটি তারা দেখতে পান না। এমনকি কয়েকজন তো এমন সন্দেহও প্রকাশ করেন আদৌ ওই দ্বীপটি ওখানে ছিল কিনা! তবে এই সন্দেহ একেবারেই ভুল। ওই দ্বীপটা যে কখনই ছিল না, তা নয়। তার যথেষ্ট প্রমাণ রয়েছে। দ্বীপটি সমুদ্রতল থেকে মাত্র ১.৪ মিটার উঁচু ছিল। ১৯৭৫ সাল থেকে এটি ছিল জাপানের অন্তর্গত। জাপান সরকারই এর নাম রেখেছিল। উপকূল থেকে স্পষ্ট দেখা যেত দ্বীপটি।

প্রশাসন জানায়, দ্বীপটি তো আর উধাও হয়ে যেতে পারে না। অবশ্যই কোনো কারণ আছে। খুব সম্ভবত সেটি হতে পারে ঝোড়ো বাতাস বা তুষারপাত। সেই কারণে হয়তো জলের তলায় তলিয়ে গেছে। তবে সত্যিই যদি দ্বীপটি তলিয়ে যায়, তাহলে নতুন করে তৈরি করতে হবে জাপানের মানচিত্র।

ফেমাসনিউজ২৪.কম/আরআই/আরবি