logo

বুধবার, ১৫ আগস্ট ২০১৮ | ৩১ শ্রাবণ, ১৪২৫

header-ad

ঐতিহাসিক বৈঠক শেষ, দ্বীপ ছাড়লেন ট্রাম্প!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | আপডেট: ১২ জুন ২০১৮

অবশেষে সমাপ্ত হলো উত্তর কোরিয়ার সর্বোচ্চ নেতা কিম জন উনের সঙ্গে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের ঐতিহাসিক স্বাক্ষাত।

আজ চুক্তি সইয়ের পর বৈঠকের সমাপ্তি টেনে সান্তোসা দ্বীপ ছেড়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। দুই নেতার মোটর শোভাযাত্রা দ্বীপটি ছেড়ে চলে গেছে।

তবে সাংবাদিকদের ট্রাম্প বলেন, আজ দুপুরের পরই তিনি একটি সংবাদ সম্মেলন করতে যাচ্ছেন। সিঙ্গাপুর ছাড়ার আগে তিনি একাই সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপ করবেন বলে প্রত্যাশা করা হচ্ছে।

-খবর গার্ডিয়ান অনলাইনের।

এর আগে ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, আমরা চমৎকার একটি দিন পার করেছি। আমরা পরস্পরের সম্পর্কে অনেক কিছু জেনেছি। তখন এক প্রতিবেদক জিজ্ঞেস করেন- কিম সম্পর্কে আপনি কী জেনেছেন?

ট্রাম্প বলেন, আমি জানালাম, কিম একজন মেধাবী মানুষ। এ ছাড়াও আমি জানলাম, তিনি তার দেশকে অনেক বেশি ভালোবাসেন। এরপর তারা আবারো দুই হাত প্রসারিত করে করমর্দন করেন। তিনি বলেন, আমাদের মধ্যে আরও বহু সাক্ষাৎ হবে।

এর আগে, কিমের সঙ্গে বৈঠক শেষ করে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, সবাই যা কল্পনা করেছেন, তার চেয়ে ভালো আলোচনা হয়েছে। ট্রাম্প বলেন, তিনি ও কিম জং উন কিছু একটা সই করার পথে রয়েছেন। তবে কি সই করবেন, সে বিষয়ে কিছু বলেননি।

এ সময়ে ট্রাম্পকে জিজ্ঞাসা করা হয়, কি সই করছেন, স্যার? তখন ট্রাম্প বলেন, কয়েক মিনিট পরই আমরা তা ঘোষণা করতে যাচ্ছি।

সিঙ্গাপুরের সান্তোসা দ্বীপের কাপেলা হোটেলে কিম জং উনের সঙ্গে ঐতিহাসিক বৈঠক শেষে নিজ নিজ দেশের প্রতিনিধিদের সঙ্গে খাবার খেতে বের হওয়ার সময় তিনি এসব কথা বলেন। তারা প্রায় ৪০ মিনিট আলোচনা করেন।

যুক্তরাষ্ট্রের কোনো ক্ষমতাসীন প্রেসিডেন্টের সঙ্গে উত্তর কোরিয়ার নেতার এই প্রথম কোনো বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে।

স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সকালে পরস্পরের দিকে সতর্কভাবে হেসে করমর্দন করে ঐতিহাসিক বৈঠক শুরু করেন তারা। এসময়ে তারা প্রায় ১২ সেকেন্ড করমর্দন করেন। করমর্দন শেষে কিম জং উনের ডান কাঁধ আলতোভাবে স্পর্শ করেন ডোনাল্ড ট্রাম্প।

ফেমাসনিউজ২৪.কম/আরআই/আরবি