logo

বৃহস্পতিবার, ১৫ নভেম্বর ২০১৮ | ১ অগ্রাহায়ণ, ১৪২৫

header-ad

বিমানে ২০টি সাপ, হতবাক কর্মীরা!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | আপডেট: ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮

সকলেই শিউড়ে উঠছেন এই ভেবে যে, যদি কোনও ভাবে সাপগুলি বেরিয়ে পড়ত, তাহলে কী ঘটত? ‘যোগসর্পের হাঁড়ি’ নিয়ে ট্রেনে উঠেছিলেন স্বামী ঘুটঘুটানন্দ। তবে নারায়ণ গঙ্গোপাধ্যায়ের টেনিদার গল্পের সেই ভণ্ড সাধুর হাতের ওই হাঁড়িতে আদৌ সাপ ছিল না। কিন্তু বাস্তবিকই ২০টা জ্যান্ত সাপ নিয়ে একেবারে বিমানেই চেপে বসলেন এক ভদ্রলোক! বিমান বন্দরের কর্মীরা যখন সেটা আবিষ্কার করলেন, তখন তাদের যে আত্মারাম খাঁচাছাড়া হওয়ার জোগাড় হয়েছিল, তা বলাই বাহুল্য।

এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে জানা যাচ্ছে, জার্মানি থেকে রাশিয়াগামী একটি বিমানের যাত্রী ছিলেন ওই ব্যক্তি। সবথেকে বড় কথা, জার্মানির ডাসেলডর্ফ বিমান বন্দরে চেকিংয়ের সময়েও কেউ কিছু বুঝতে পারেনি। গণ্ডগোল বাধে মস্কো পৌঁছে। তখনই তার ব্যাগের মধ্যে অতগুলি সাপ আবিষ্কার করেন ‘এনভায়রনমেন্টাল প্রোটেকশন এজেন্সি’র আধিকারিকরা।

ধরা পড়ার পরে ওই ব্যক্তি জানান, তিনি জার্মানির বাজার থেকে কিনেছিলেন সাপগুলি।

প্রশ্ন উঠছে, জার্মান বিমানবন্দরে কেন ধরা পড়ল না ব্যাপারটা? তাহলে কি ওই ব্যক্তির কাছে বিষধর সাপ নিয়ে যাওয়ার লাইসেন্স ছিল?

জানা যাচ্ছে, তেমন কিছুই ছিল না ওই ব্যক্তির কাছে। সকলেই শিউড়ে উঠছেন এই ভেবে যে, যদি কোনও ভাবে সাপগুলি বেরিয়ে পড়ত, তাহলে কী ঘটত? ওই ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে। তবে তার নাম ও তিনি কোন দেশের বাসিন্দা, সে তথ্য প্রকাশ করা হয়নি।

ফেমাসনিউজ২৪.কম/কেআর/এস