logo

বুধবার, ২১ নভেম্বর ২০১৮ | ৭ অগ্রহায়ণ, ১৪২৫

header-ad

যৌন হয়রানির দায়, ভারতে প্রতিমন্ত্রীর পদত্যাগ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | আপডেট: ১৪ অক্টোবর ২০১৮

সম্প্রতি ভারতে একের পর এক নারী সাংবাদিক তাদের সাবেক সম্পাদক, ব্যুরো চিফ বা ঊর্ধ্বতন বসের হাতে লাঞ্ছিত হওয়ার অজস্র অভিযোগ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের সামনে আনতে শুরু করেছেন।

কয়েকটি ক্ষেত্রে অভিযুক্ত ব্যক্তিরা ক্ষমাও চেয়ে নিয়েছেন, কোথাও আবার সংশ্লিষ্ট সংবাদ প্রতিষ্ঠান অভিযোগের যথাযথ তদন্ত করবে বলে আশ্বাস দিয়েছে।

ভারতে চলমান মি টু আন্দোলনে অভিযুক্ত হয়েছেন দেশটির পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী এম জে আকবর। এ অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে তিনি পদত্যাগ করেছেন বলে জানা গেছে।

সম্প্রতি মি টু আন্দোলনে কয়েকজন নারী সাংবাদিক সাবেক এই সম্পাদকের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ তোলেন। এ নিয়ে তীব্র সমালোচনা শুরু হলে আজ রোববার দেশে ফিরে তিনি পদত্যাগ করেন।

ভারতের কয়েকটি গণমাধ্যম জানায়, ই মেইলে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে পদত্যাগপত্র পাঠিয়েছেন আকবর। তবে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় তা গ্রহণ করেছে কিনা তা নিশ্চিত করা হয়নি।

গত ৮ অক্টোবর ভারতের দুই নারী সাংবাদিক তার বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ তোলেন। এরপর তার দল ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) নারী ও শিশু উন্নয়নবিষয়ক মন্ত্রী মণিকা গান্ধিও এ ঘটনায় তদন্ত দাবি করেন। এ ছাড়াও দেশটির প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেসের শীর্ষ নেতারাও যৌন হয়রানির অভিযোগে আকবরকে পদত্যাগের আহ্বান জানান।

ভারতের সংবাদমাধ্যম টেলিগ্রাফের সাবেক এই সম্পাদকের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ আনেন দুই নারী সাংবাদিক। তাদের একজন প্রিয়া রামানি। প্রায় এক বছর আগে ভোগ ম্যাগাজিনের ভারত সংস্করণে প্রকাশিত প্রবন্ধে তিনি এ যৌন নির্যাতনের কথা বলেন।

টুইট বার্তায় প্রিয়া রামানি বলেন, ‘সেই ঘটনার জন্য দায়ী এম জে আকবর।’ এ ছাড়া তার বিরুদ্ধে আরও বেশ কয়েকজন নারী যৌন হয়রানির অভিযোগ এনেছেন, যাদের বেশিরভাগই সাংবাদিক। তাদের অভিযোগ, মন্ত্রী আকবর সম্পাদক থাকাকালীন তারা যৌন হেনস্তার শিকার হন।

গত এক বছর ধরে সফল মার্কিন চলচ্চিত্র প্রযোজক হার্ভে ওয়েইনস্টেনের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্তার অভিযোগে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হ্যাশ ট্যাগ ব্যবহার করে ‘মি টু’ (#MeToo) আন্দোলন শুরু করেন হলিউডের বেশ কয়েকজন অভিনেত্রী।

পাশাপাশি পরিচিত অনেক নারী প্রভাবশালী এ প্রযোজকের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ আনেন; যেগুলো আদালতে বিচারাধীন। তারই রেশ ধরে ভারতেও শুরু হয়েছে মি টু ঝড়।

সূত্র: দ্য ফার্স্টপোস্ট

ফেমাসনিউজ২৪.কম/আরআই/আরবি