logo

শনিবার, ১৮ আগস্ট ২০১৮ | ৩ ভাদ্র, ১৪২৫

header-ad

এক বেদানায় মুক্তি!

লাইফস্টাইল ডেস্ক | আপডেট: ০৯ জুন ২০১৮

টাটকা বেদানা দেখতে যেমন সুন্দর, খেতেও মিষ্টি। ফলের রাজা আম। তবে চিকিৎসকরা কিন্তু বলেন ফলের রাজা বেদানা। খাদ্যগুণ, পুষ্টিগুণে ভরপুর সুস্বাদু এই ফল।

চলুন আজ জেনে নেয়া যাক, বেদানার নানা গুণাগুণ সম্পর্কে-

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়

বেদানার মধ্যে রয়েছে পটাশিয়াম ও ভিটামিন-সি। প্রতিদিন বেদানার রস খেলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাডড়ে। এর অ্যান্টিঅক্সিডেন্টগুণও গ্রিনটি বা রেড ওয়াইনের থেকে প্রায় তিন গুণ বেশি। এর মধ্যে রয়েছে তিন প্রকার অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। ট্যানিন, অ্যান্থো সিয়ানিন ও এলাজিক অ্যাসিড। অ্যান্থোসিয়ানিন দেহ কোষ সুস্থ রাখার ফলে ভাইরাসের সংক্রমণ রুখতে পারে। ফোলাভাব কমে, ক্ষয় রুখতে পারে।

রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখে

প্রচুর পরিমাণ অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট থাকার কারণে বেদানা সিস্টোলিক ব্লাড প্রেশার নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। ফলে স্ট্রেস, টেনশন কমে। হার্টের সমস্যা থাকলে হার্টের অসুখে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কাও কমে।

কোলেস্টেরল নিয়ন্ত্রণে রাখে

আর্টারি পরিষ্কার রাখতে সাহায্য করে বেদানা। বেদানার রস তাই রক্তের কোলেস্টেরলের মাত্রা কমাতে দারুণ উপযোগী। এর পলিফেনল অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট কার্ডিওভাসকুলার স্বাস্থ্য ভালো রাখতে সাহায্য করে। রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা বেশি হলে প্রতিদিন বেদানার রস খাওয়া যেতে পারে।

ব্যথা কমায়

সব ধরনের ব্যথা ও পেশি-বাত, অস্টিওআর্থারাইটিস, পেশির ব্যথা কমাতে সাহায্য করে বেদানা। তরুণাস্থির ক্ষয় রুখতেও উপকারী বেদানা।

ক্যানসার রোধ

বেদানা অ্যাপপটোসিস প্রক্রিয়ার মাধ্যমে ক্যানসার নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। প্রস্টেট ক্যানসার, ব্রেস্ট ক্যানসারে ভালো কাজ করে বেদানার অ্যান্টিক্যানসার এজেন্ট। তাই সুস্থ থাকতে প্রতিনিয়ত বেদানা খাওয়া উচিত।

ফেমাসনিউজ২৪.কম/আরআই/আরবি