logo

শুক্রবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ১৬ ফাল্গুন, ১৪২৬

header-ad

তেজপাতা খান, ডায়াবেটিস কমান

ফেমাসনিউজ ডেস্ক | আপডেট: ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০

তেজপাতা
অতিরিক্ত মানসিক ও কাজের চাপ, অনিয়ন্ত্রিত খাদ্যাভ্যাস ও অনিয়মিত জীবনযাপনসহ বিভিন্ন কারণে ডায়াবেটিসে হতে পারে। আর প্রতিনিয়তই এই রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন অনেক মানুষ। ডায়াবেটিস আক্রান্তদের হৃদরোগ, স্ট্রোক হওয়ার ঝুঁকি বেশি থাকে। এছাড়া কিডনি ক্ষতিগ্রস্ত হওয়া, চোখের রেটিনা ক্ষতিগ্রস্ত হওয়া এবং প্রজনন ক্ষমতা হ্রাস পাওয়া–সর্বোপরি মৃত্যুর ঝুঁকি বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকবে।

ডায়াবেটিস কখনও ভালো হয় না। তবে এই রোগ নিয়ন্ত্রণে রাখলে ভালো থাকা যায়। ডায়াবেটিস ধরা পড়লে অনেকেই আতঙ্কিত হন। তবে জানেন কী আপনার হাতের কাছেই আছে একটি পাতা। যা আপনার ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ করবে।

রান্নার স্বাদ বাড়াতে তেজপাতা ব্যবহার করা হলেও ডায়াবেটিস কমাতেও তেজপাতা খুবই উপকারী। এছাড়াও এর রয়েছে অনেক ঔষধি গুণ। এছাড়াও তেজপাতার রয়েছে হাজারও গুণ। ভিটামিন ‘ই’ ও ‘সি’-সমৃদ্ধ এই মসলায় রয়েছে ফলিক অ্যাসিড ও বিভিন্ন খনিজ উপাদান।

গবেষণায় দেখা গেছে, টানা ৩০ দিন ১ থেকে ৩ গ্রাম তেজপাতা গ্রহণ করলে রক্তে গ্লুকোজ ও কোলেস্টরেলের পরিমাণ কমে। তেজপাতায় থাকা উপাদান ইনসুলিনের মাত্রা উল্লেখযোগ্য হারে নিয়ন্ত্রণে রাখে। এছাড়াও তেজপাতার রয়েছে আরও অনেক গুণ।

তেজপাতার স্বাস্থ্যগুণ
১) তেজপাতা উপকারী কোলেস্টেরলের পরিমাণ বাড়ায়।
২) ফাঙ্গাস ইনফেকশন কমাতে ও কাটা-ছড়া-ঘা সারাতেও খুবই কার্যকর।
৩) রক্তে শর্করার পরিমাণ কমায়।
৪) তেজপাতার ধোঁয়ার গন্ধে উত্তেজনা নিয়ন্ত্রণে আসে।
৫) হজমশক্তি বাড়ায়।
৬) শরীর থেকে টক্সিন বের করে দেয়।
৭) তেজপাতায় রয়েছে রুটিন ও ক্যাফেক অ্যাসিড যা হার্টের স্বাস্থ্য ভাল রাখে।
গরম পানিতে কয়েকটি তেজপাতা ফুটিয়ে নিন। পানি ঠাণ্ডা করে প্রতিদিন এক গ্লাস করে খান। দেখবেন উপকার পাবেন। সূত্র: জি নিউজ