logo

শুক্রবার, ২৪ নভেম্বর ২০১৭ | ৯ অগ্রহায়ণ, ১৪২৪

header-ad

‘দয়া করে আপনার বাচ্চাকে চুমু খাবেন না’

বিবিধ ডেস্ক | আপডেট: ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৭

Do not kiss the baby
ক্রিস্টাল ও তার লিভ-ইন পার্টনার জন গ্রেশ্যাম তাদের ১৫ দিন বয়সী শিশুকে নিয়ে ভয়ানক বিপদে পড়েছিলেন সম্প্রতি। শিশুটিকে স্পর্শ করলেই সে চিৎকার করে কাঁদছিল। শিশুকে আদর করার সময়ে আমরা এতোটাই আপ্লুত হয়ে যাই যে, তার সেই আদর সইছে কি-না, সে বিষয়ে খোঁজ রাখি না।

যুক্তরাজ্যের ২৬ বছর বয়সী মা ক্রিস্টাল হায়েস বিপন্ন হয়েই আবেদন করছেন- আর যাই করুন, বাচ্চাকে চুমু খাবেন না।

একটি আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, ক্রিস্টাল ও তার লিভ-ইন পার্টনার জন গ্রেশ্যাম তাদের ১৫ দিন বয়সী শিশুকে নিয়ে ভয়ানক বিপদে পড়েছিলেন। শিশুটি ক্রমশ মারাত্মক অসুস্থ হয়ে পড়ায় তাকে নিয়ে হাসপাতালে দৌড়তে হয় তাদের। সেখানে রীতিমতো যমে-মানুষে টানাটানি চলে শিশুটিকে নিয়ে।

চিকিৎসকরা জানান, শিশুটি মেনিনজাইটিসে আক্রান্ত। অথচ ক্রিস্টাল বা জন কিছুতেই ভেবে পাননি, কোথা থেকে এই মারাত্মক ব্যাধি তাদের সন্তানের শরীরে সংক্রমিত হল। ক্রিস্টালের একটি দু’বছর বয়সী সন্তানও রয়েছে। তিনি অনেক ভাবনা চিন্তা করে বুঝতে পারেন, এই অসুখের মূলে রয়েছে এমন কোনও সংক্রমণ, যা ঠিক জানিত ভাবে আসে না।

চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলে তার মনে হয়, শিশুকে চুম্বন করা থেকেই এই সংক্রমণ হয়েছে। তিনি শিশুদের আদর করতে ভালোবাসেন। আদর করার সময়ে বিস্তর চুমুও খান তাদের। এ কারণে তার বন্ধু-বান্ধবীরা তাকে ‘আন্টি কিসি’ বলে ডাকেন।

দীর্ঘ টানাপোড়েনের পরে শিশুটি রোগমুক্ত হয়। ক্রিস্টাল তার স্বভাব বদলেছেন। আর চুমু খেয়ে বাচ্চাদের আদর করতে রাজি নন তিনি। সেই সঙ্গে অন্যদেরও জানাচ্ছেন— যেমন ইচ্ছে আদর করুন, কিন্তু সদ্যোজাত শিশুকে কিছুতেই চুমু খাবেন না। অন্য কারোকে খেতেও দেবেন না।
ফেমাসনিউজ২৪/এফএম/এমএম