logo

রবিবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৭ | ৩ পৌষ, ১৪২৪

header-ad

‘তার পরেও কিন্তু দিয়েছি’

ফেমাসনিউজ ডেস্ক | আপডেট: ০৫ অক্টোবর ২০১৭

স্পেনের কাতালোনিয়ার স্বাধীনতার দাবিতে অনুষ্ঠিত গণভোটে কাতালোনিয়ানরা জয়ী হয়েছে। কেন্দ্রীয় সরকার ও সাংবিধানিক আদালতকে উপেক্ষা করে পুলিশের বাধার মধ্যে রোববার গণভোট অনুষ্ঠিত হয়। ওই গণভোটে কাতালোনিয়ার নাগরিকরা স্বাধীন রাষ্ট্রের অধিকার অর্জন করেছে বলে দাবি করেছেন কাতালান সভাপতি চার্লস পুজডেমন্ট।

গত রোববার গণভোটের সময় ভোটে বাধা দেওয়াকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে কমপক্ষে ৩৩৭ জন আহত হয়েছেন। স্পেন সরকারের নির্দেশ অনুযায়ী পুলিশ ওই গণভোটে বাধা দেয়।

সহিংস গণভোটের পর কাতালোনিয়া স্বাধীন হওয়ার অধিকার অর্জন করেছে বলে মন্তব্য করেছেন সেখানকার নেতা কার্লোস পুজডেমন্ড। তিনি বলেন, স্বাধীনতা ঘোষণার দরজা খুলে গেছে। গত রোববার অনুষ্ঠিত গণভোটে ৪২ দশমিক ৩ শতাংশ ভোট পড়েছে বলে জানিয়ে কাতালান কর্মকর্তারা বলেন, ৯০ শতাংশ ভোট পড়েছে স্বাধীনতার পক্ষে।

কাটালুনিয়ায় গণভোটে পুলিশ বাধা দেয়ায় ফলে ডয়চে ভেলের ফেসবুক পাতায় ওপরের মন্তব্যটি করেছেন একজন পাঠক৷ ভিন্নমতও রয়েছে৷

গণভোট নিয়ে পাঠক মঈন আহমেদ মনে করছেন, কাটালুনিয়া স্বাধীন হলে ইউরোপের অনেক দেশ নাকি ভেঙ্গে যাবে। তবে তিনি স্প্যানিশ সরকার যে ব্যবস্থা নিচ্ছে তার প্রতিক্রিয়ায় ইউরোপীয় ইউনিয়ন কী দেবে, সেটাই দেখার অপেক্ষায় আছেন৷

‘‘এই বিষয়ে ইউরোপীয় গণতন্ত্র কী বলে?'' দেওয়ান কিবরিয়ার প্রশ্ন৷ তবে পাঠক মাহমুদুল হাসান কিন্তু পুলিশের বাধা দেয়াকে একেবারেই সমর্থন করেন না৷ মোহাম্মদ ইউসুফ সায়মন খুব জোর দিয়ে বলছেন, ‘‘স্প্যানিশদের প্রতিহত করে ভোট দিতে হবে, নিজের অধিকার নিজেকেই প্রতিষ্ঠা করতে হবে৷''

তথ্যসূত্র: ডয়েচ ভেলে।

ফেমাসনিউজ২৪/এমএইচ/আরকে