logo

শুক্রবার, ১৫ নভেম্বর ২০১৯ | ১ অগ্রাহায়ণ, ১৪২৬

header-ad

১২ বছরের সাধনায় ‘খাসি’ ভাষায় আল কোরআনের অনুবাদ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | আপডেট: ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

ঐশিগ্রন্থ পবিত্র আল কোরআন বিশ্বের বিভিন্ন ভাষায় অনূদিত হয়েছে। এবার ভারতের উত্তর-পূর্ব রাজ্য মেঘালয়ের স্থানীয় ‘খাসি’ ভাষায় অনূদিত হলো এ মহাগ্রন্থ।

ভারতের গণমাধ্যম শিলং টাইমস জানায়, গত শনিবার ভারতের মেঘালয় রাজ্যের রাজধানী শিলংয়ে স্থানীয় ‘খাসি’ ভাষায় অনূদিত কোরআনের প্রকাশনা অনুষ্ঠিত হয়। কোরআনের ইংরেজি অনুবাদ থেকে খাসি ভাষায় অনুবাদটি করে ‘সেং ভালাং ইসলাম’ নামের একটি প্রতিষ্ঠান।

ইসলাম ও কোরআনের বাণীর প্রচার-প্রচারণার উদ্দেশ্যে একটি আঞ্চলিক ভাষায় এ অনুবাদ করা হয়েছে বলে জানান ওই প্রতিষ্ঠানের এক মুখপাত্র।

প্রাথমিকভাবে খাসি ভাষায় কোরআনের ৩ হাজার কপি ছাপানো হয়েছে। পরে এ সংখ্যা চাহিদা অনুযায়ী আরও বাড়ানো হবে।

শিলং টাইমস আরও জানিয়েছে, ‘দীর্ঘ ১২ বছরের অধ্যাবসায় ও রিসার্চের পর ১ হাজার ২৫১ পৃষ্ঠার এ পাণ্ডুলিপি প্রকাশ করে অনুবাদের সম্পাদনা বোর্ড।’

অনুবাদক সংস্থা সেং ভালাং ইসলামের এক মুখপাত্র বলেন, ‘খাসি ভাষায় পবিত্র কোরআন অনুবাদের ফলে মেঘালয়ের ১৬ লাখের বেশি লোক অর্থসহ কোরআন বুঝতে ও পড়তে পারবে। স্থানীয়রা সহজেই কোরআনের জ্ঞানার্জন ও বিধান বাস্তবায়নে সক্ষম হবে।’

প্রসঙ্গত, ‘খাসি’ ভাষা অস্টোয়াসেটিক ভাষার অংশ। ২০০৫ সালে মেঘালয়ে এ ভাষাকে সহযোগী অফিসিয়াল ভাষা হিসেবে স্বীকৃতি দেয়া হয়।

ফেমাসনিউজ২৪.কম/আরআই/আরবি